শিরোনাম

সাভারে দুই দিনব্যাপী আয়কর মেলার উদ্বোধন

উপজেলা প্রতিবেদক, সাভার

‘সবাই মিলে দেব কর, দেশ হবে স্বনির্ভর’ এ স্লোগানকে সামনে রেখে সারা দেশের ন্যায় সাভারেও দুই দিন ব্যাপী আয়কর মেলার উদ্বোধন করা হয়েছে।

শুক্রবার সকালে সাভার উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে  প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে আয়কর মেলার শুভ উদ্বোধন করেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রান প্রতিমন্ত্রী ডাঃ এনামুর রহমান।

এসময় ‘‘উন্নয়নের শীর্ষে যাব-যথাযথ আয়কর দিব, আয়করে প্রবৃদ্ধি-দেশ ও জনগনের সমৃদ্ধি’’ এরকম অনেক শ্লোগান সম্বলিত ব্যানার-ফেস্টুন শোভা পায় মেলা এলাকায়।

অনুষ্ঠানে কর অঞ্চল ১২ এর কর কমিশনার মোঃ আবদুল মজিদের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাভার পৌরসভার মেয়র হাজী আব্দুল গণি, কর অঞ্চল-১২ এর অতিরিক্ত কর কমিশনার মোঃ শহিদুল ইসলাম, যুগ্ম কর কমিশনার মোহাম্মদ ফজলে আহাদ কায়ছার ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পারভেজুর রহমান।

প্রতিবারের মতো এবারও মেলায় আয়কর বিবরণীর ফরম দাখিল থেকে শুরু করে কর পরিশোধের জন্য ব্যাংক বুথ রয়েছে। একই ছাদের নিচে মিলবে সব সেবা। মেলায় সহায়তাকেন্দ্রে অপেক্ষা করছেন কর্মকর্তারা, করদাতারা শুধু প্রয়োজনীয় কাগজপত্র সঙ্গে আনলেই হবে।

মেলায় ই-টিআইএন নিবন্ধন ও আয়কর বিবরণী গ্রহণ, কর পরিশোধ,আয়কর বিবরণী পূরণে সহায়তা এবং কর শিক্ষা প্রদানের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা থাকছে।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে কর অঞ্চল ১২ এর কর কমিশনার মোঃ আবদুল মজিদ বলেন, গতবছর ৬৬০ করদাতা মেলায় কর প্রদান করেন। সেই অনুপাতে করদাতার সংখ্যাটা এবছর বৃদ্ধি পাবে বলে আশা প্রকাশ করেন। মেলায় করদাতাদের সব ধরনের সহায়তা প্রদান করা হয়। এখানে হয়রানীর কোন সুযোগ নাই। করদাতাদের বুঝানোর জনই আয়কর মেলা করা হচ্ছে। এর মাধ্যমে আমরা জনগনের দোরগোড়ায় এসে তাদেরকে সকল বিষয়ে বুঝিয়ে কর আদায় করছি। এখানে এসে করদাতারা যেন নির্বিঘ্নে কর প্রদান করতে পারে।

এছাড়া রিটার্ন দাখিলের ফর্মের বিষয়ে তিনি বলেন, প্রতিবছরই আয়কর রিটার্ন ফরমকে সহজ করার জন্য গবেষনা করা হয়। সম্পদ বিবরনী হিসাব মেলানোর জন্য মেলায় হেল্প ডেস্ক রয়েছে। আশা করছি ভবিষ্যতে এই পদ্ধতি আরও সহজ হবে এবং জনগন স্বতঃস্ফুর্তভাবে কর প্রদান করবে।

করদাতাদের আয়কর দেওয়ার বিষয়টি আরও সহজ করতে মেলায় মোবাইল ব্যাংকিং সুবিধা রয়েছে। এবারই প্রথম রকেট, ইউপে, বিকাশ, নগদ এবং শিওর ক্যাশ এনবিআরের ই-পেমেন্ট পোর্টালের সঙ্গে সংযুক্ত হয়েছে। ফলে ই-পেমেন্টে মোবাইল ব্যাংকিং যুক্ত হওয়ার মাধ্যমে করদাতারা সহজেই আয়কর দিতে পারবেন।

আইআই/শিরোনাম বিডি

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
আরো পড়ুুন