1. [email protected] : admin : jashim sarkar
  2. [email protected] : admin_naim :
  3. [email protected] : admin_pial :
  4. [email protected] : admin : admin
  5. [email protected] : Rumana Jaman : Rumana Jaman
  6. [email protected] : Saidul Islam : Saidul Islam
সাভারে আ. লীগ নেতা খুন, নেপথ্যে মাদক বিক্রি |ভিন্নবার্তা

সাভারে আ. লীগ নেতা খুন, নেপথ্যে মাদক বিক্রি

vinnabarta.com
  • প্রকাশ : রবিবার, ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ০৩:৩১ অপরাহ্ন
স্ত্রীর পাশে নিহত আ.লীগ নেতা আব্দুল মজিদ।

সাভারে মাদক ব্যবসায় বাঁধা প্রদানের কারণেই পৌর আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুল মজিদকে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ নিহতের পরিবারের। এঘটনায় গুলিবিদ্ধ অবস্থায় স্বপন মিয়া নামে আরো একজন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এদিকে হত্যাকান্ডের ঘটনায় জড়িত সন্দেহে এক নারীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে পুলিশ।

রবিবার সকালে কোটবাড়ি এলাকায় নিহত আওয়ামী লীগ ওই নেতার বাড়িতে স্বজনদের আহাজারিতে চারপাশ ভারী হয়ে ওঠে। এর আগে শনিবার রাতে সাভারের পৌর এলাকার কোটবাড়িতে এই হত্যাকান্ডের ঘটনার পর এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালেও একই দৃশ্যের সৃষ্টি হয়।

নিহত পৌর আওয়ামী লীগের সহ-প্রচার সম্পাদক আব্দুল মজিদ (৩৮) সাভারের কোটবাড়ি এলাকার আবুল কাশেমের ছেলে। মা-বাবা, দুই ছেলে-মেয়ে ও সন্তান সম্ভবা স্ত্রীকে নিয়ে সে নিজ বাড়িতেই থাকতেন।

নিহতের বোন নার্গিস বেগম অভিযোগ করে বলেন, এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী মিকাইল মোল্লা ও তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে মাদক এবং হত্যাসহ একাধিক মামলা রয়েছে। তার ভাই আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে দীর্ঘ দিন ধরে সক্রিয়। বিগত ৭-৮ দিন পূর্বে এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী মিকাইলকে মাদক বিক্রিতে বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানালে মিকাইল ও তার সহযোগীদের সাথে নিহত আওয়ামী লীগ নেতার হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। পরে গতরাতে মিকাইল তার নিজ বাড়ির সামনে সুজাত, মনির, বাবু ও রিপনসহ ৬-৭ জনকে ভাই মজিদকে হত্যার উদ্দেশ্যে ওৎ পেতে থাকে। পরে তার ভাই মজিদ সেখানে পৌছলে তাকে গুলি করে হত্যা করে মিকাইল ও তার সন্ত্রাসী বাহিনী।

গুলিবিদ্ধ স্বপন মিয়া বলেন, শনিবার রাতে প্রতিবেশী আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুল মজিদের ছায়াবীথি এলাকার সমিতির অফিসে ঋণ গ্রহণের জন্য জান তিনি। পরে রাত ১০টার দিকে তারা ফেরার পথে আব্দুল মজিদের নিজ বাড়ির প্রায় দুই-তিন’শ ফুট দূরে একটি চিপা গলিতে কয়েকজন অস্ত্রধারী তাদের গতিরোধ করে। পরে পিস্তুল ঠেকিয়ে মজিদের মাথার পেছনের অংশে সন্ত্রাসীরা গুলি করে। এসময় কিছু বুঝে ওঠার আগেই তার ডান পায়েও গুলি করে পালিয়ে যায় সন্ত্রাসীরা। পরে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে সাভার এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। এসময় মজিদকে মৃত ঘোষনা করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক। পরে অপারেশন থিয়েটারে তাকে চিকিৎসা দেওয়া হয়।

হত্যাকান্ডের ব্যাপারে ঢাকা জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) সাইদুর রহমান জানান, পূর্ব শত্রুতার জের ধরে পৌর আওয়ামী লীগ নেতাকে হত্যার ঘটনা ঘটেছে। তবে এঘটনায় সন্দেভাজন একজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। তবে তদন্তের স্বার্থে তার পরিচয় জানাতে অপারগতা প্রকাশ করেন তিনি। এছাড়া নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান এই কর্মকর্তা।

আইআই/শিরোনাম বিডি

আরো পড়ুন

মাসিক আর্কাইভ

© All rights reserved © 2021 vinnabarta.com
Customized By Design Host BD